Text size A A A
Color C C C C
পাতা

সিটিজেন চার্টার

সিটিজেন চার্টার

জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রকের দপ্তর, রাজশাহী।

 

১। সার্বিক খাদ্য ব্যবস্থাপণা সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার স্বার্থে সরকারের দিক নির্দেশনা

     মোতাবেক যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ।

২। উৎপাদককে ন্যায্য মূল্য প্রদান ও আপদকালীন মজুদ গড়ার লÿÿ্য ধান, চাল ও গম

     নির্ধারিত ক্রয়কেন্দ্রের মাধ্যমে সংগ্রহ ও গুদামজাত করন।

৩। আমন ও বোরো মৌসুমে সরকারী সংগ্রহ কার্যক্রম বাসত্মবায়নের লÿÿ্য চালকল মালিকদের সঙ্গে

     চুক্তি সম্পাদন করা ও সংগ্রহ কার্যক্রম ত্বরান্বিত করা।

৪। ভবিষ্যৎ আপদকালীন চাহিদা মেটানোর জন্য সরকারী খাদ্য গুদামে খাদ্যশস্যের মজুদ 

     গড়েতোলা।

৫। উপজেলার খাদ্যশস্যস্যের ভবিষ্যৎ চাহিদার প্রেÿÿতে অভ্যমত্মরীণ চলাচল সূচীর মাধ্যমে গুদামে

     খাদ্যশস্যের মজুদ গড়েতোলা।

৬। খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর আওতায় গ্রামীণ গরীব জনগণের মধ্যে ১০/- টাকা কেজি মূলে চাল

     বিতরণ।

৭। ৪র্থ শ্রেণীর সরকারী কর্মচারীদের মাঝে স্বল্প মূল্যে খাদ্যশস্য বিতরণ।

৮। ওএমএস কার্যক্রমের আওতায় ওএমএস খাতে খাদ্যশস্য বরাদ্দ, ভোক্তা পর্যায়ে 

     বিলি/বিতরণ, তদারকি করন এবং  সরকার নির্ধারিত মূল্যে বিক্রি নিশ্চিত করা।

৯। সেনাবাহিনী, পুলিশ, বিজিবি, আনসার, ফায়ার সার্ভিস ও জেলখানা ইত্যাদি

     সংস্থাকে বিশেষ জরম্নরি গ্রাহক হিসাবে খাদ্যশস্য সরবরাহ করন।

১০। সামাজিক ব্যবস্থায় জিআর, ভিজিডি, ভিজিএফ, টিআর, কাবিখা ইত্যাদি কর্মসূচীর মাধ্যমে

     খাদ্যশস্য সরবরাহ করন।

১১। খাদ্যশস্যের বাজার দর স্থিতিশীল রাখার লÿÿ্য নিয়মিত বাজার মনিটরিং ও উর্দ্ধতন

     কর্তৃপÿকে বাজার দর অবহিত করন।

১২। বিনির্দেশ মোতাবেক খাদ্যশস্য সংগ্রহ ও সংগৃহীত খাদ্যশস্যের মূল্য নির্ধারিত সময়ে

     মধ্যে (১০ দিন) সংশিস্নষ্ট পেইং এজেন্ট (ব্যাংককে) পুনর্ভরণ করন।

১৩। অধীনস্থ কর্মচারীদের যাবতীয় সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করণের কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণ 

     করা, তাঁদেরকে দায়িত্ব পালনে উদ্ধুদ্ধ করা।

১৪। চালকল আদেশ/২০০৮ অনুযায়ী জেলাধীন চালকল মালিকদের চালকলের লাইসেন্স

     প্রদান ও ৩০ জুন তারিখের মধ্যে নবায়ন করা। অনুরম্নপভাবে জেলাধীন খাদ্যশস্য 

     ব্যবসায়ীদের খাদ্যশস্য লাইসেন্স প্রদান ও ৩০ জুন তারিখের মধ্যে নবায়ন করা।

১৫। খাদ্যব্যবস্থাপনা সংক্রামত্ম সময়োপযী অন্যান্য কার্যক্রম গ্রহণ।